Breaking News
Home / সারা দেশ / মাদারীপুরের ৪০ গ্রামে আজ ঈদ পালিত

মাদারীপুরের ৪০ গ্রামে আজ ঈদ পালিত

 

সৌদি আরবসহ মধ্য প্রাচ্যের দেশগুলোর সঙ্গে মিল রেখে দিয়ে হযরত সুরেশ্বরী (রা:) এর ভক্ত অনুসারী মাদারীপুর জেলার ৪০ গ্রামের লক্ষাধিক মানুষ পবিত্র ঈদুল আযহা পালন করছেন।

মঙ্গলবার সকাল ৯টায় সদর উপজেলার কালিকাপুর ইউনিয়নের তালুক গ্রামের চর কালিকাপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে স্বাস্থবিধি মেনে ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হয়। ঈদের জামাতে ইমামতি করেন সুরেশ্বর পীরের প্রবীণ ভক্ত আবুল হাসেন মাস্টার।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন সুরেশ্বর দরবার শরীফের পীর খাজা শাহ সূফী সৈয়দ নূরে আক্তার হোসাইনের অনুসারীরা।

সুরেশ্বর দ্বায়রা শরিফের প্রধান গদীনশীন পীর ও আন্তর্জাতিক চাঁদ দেখা কমিটির সভাপতি খাজা শাহ সূফী সৈয়্যেদ নূরে আক্তার হোসাইন বলেন, সৌদি আরবসহ মধ্য প্রাচ্যের বিভিন্ন দেশে মঙ্গলবার পবিত্র ঈদুল আযহা পালিত হচ্ছে।

তাই সৌদি আরবসহ মধ্য প্রাচ্যের সঙ্গে মিল রেখে শরীয়তপুর জেলার নড়িয়া উপজেলার সুরেশ্বর দ্বায়রা শরীফের প্রতিষ্ঠাতা হযরত জানশরীফ শাহ সুরেশ্বরী (রা:) এর মাদারীপুর ও শরীয়তপুর জেলাসহ বাংলাদেশের প্রায় দেড় কোটি ধর্মপ্রাণ মুসলমান মঙ্গলবার পবিত্র ঈদ-উল আযহা পালন করছেন।

তিনি বলেন, করোনাভাইরাসের কারণে সরকারি নির্দেশনায় স্বাস্থবিধি মেনে মসজিদে নামাজ আদায় করছেন। নামাজ শেষে স্বাস্থবিধি মেনে আল্লাহর নৈকট্য লাভে পশু কুরবানি দিচ্ছেন।

সৈয়্যেদ নূরে আক্তার হোসাইন বলেন, সুরেশ্বর দরবার শরীফের মুরিদানরা বাংলাদেশে প্রায় দেড়শ বছর ধরে সৌদি আরবের সঙ্গে মিল রেখে রোজা রাখেন, ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আযহা পালন করে আসছেন।

সে হিসেবে মাদারীপুর সদর উপজেলার পাঁচখোলা ইউনিয়নের চরকালিকাপুর, মহিষেরচর, পূর্ব পাঁচখোলা, জাজিরা, কাতলা, তালুক, খোয়াজপুর ইউনিয়নের চরগোবিন্দপুর, পখিরা, খোয়াজপুর, কুনিয়া ইউনিয়নের দৌলতপুর, কালিকাপুর ইউনিয়নের কালিকাপুর, হোসনাবাদ, ছিলারচর ইউনিয়নের রঘুরামপুর,

আংগুলকাটা, হাজামবাড়ী ও শিবচর উপজেলার বাহেরচর, কেরানীরবাট, কালকিনির রমজানপুর, কয়ারিয়া, রামারপুল, সাহেবরামপুর, আন্ডারচর, খাশেরহাটসহ জেলার ৪০ গ্রামের গ্রামের লক্ষাধিক মানুষ মঙ্গলবার ঈদুল আযহা পালন করছেন।

সুরেশ্বর পীরের ভক্ত সদর উপজেলার পাঁচখোলা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আবদুস সাত্তার মোল্লা বলেন, ইসলাম ধর্মের সবকিছুই মক্কা শরীফ হয়ে বাংলাদেশে এসেছে।

সুরেশ্বর দরবার শরীফের প্রতিষ্ঠাতা শাহ্ সুরেশ্বরী (রা:) এর অনুসারীরা ১৪৯ বছর পূর্ব থেকে সৌদি আরবসহ মধ্য প্রাচ্যের দেশগুলোর সঙ্গে মিল রেখে রোজা রাখেন, ঈদ-উল-ফিতর উদযাপন ও ঈদ উল আযহা পালন করে আসছেন। সে হিসেবে মঙ্গলবার আমরা ঈদুল আযহা পালন করছি।

About mk tr

Check Also

মানুষ হয়, নারায়ণগঞ্জে হাসপাতালের বেডে শুয়ে আছে কুকুর

  ক’ভিড ডেডি’কেটেড হাসপাতালের বেডে বসে আছে কুকুর। এমন একটি ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভাই’রাল …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *